করোনাভাইরাস: যে পরামর্শ দিলেন দেবী শেঠি

0
1855
devi shetty coronavirus

করোনাভাইরাস নিয়ে বিশ্বজুড়ে এখন চরম আতঙ্ক বিরাজ করছে। বিশ্বের ১৭২টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে এই ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বুধবার দুই লাখ ছাড়িয়েছে। এখনও এই ভাইরাসের কোন প্রতিষেধক আবিষ্কার করা সম্ভব হয়নি । তবে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সিয়েটল শহরে পরীক্ষামূলক প্রথম করোনাভাইরাসের টিকা প্রয়োগ করা হয় ।

 

উপমহাদেশের বিখ্যাত হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ ডাক্তার দেবী শেঠীর একটি অডিও ক্লিপ ভাইরাল হয়েছে, যেখানে তিনি করোনাভাইরাস নিয়ে জরুরি কিছু পরামর্শ দিয়েছেন

তিনি বলেন, যদি কারও ফ্লু বা সর্দি থাকে তাহলে প্রথমে নিজেকে আইসোলেট রেখে লক্ষণ ভালো করে পর্যবেক্ষণ করতে হবে।

প্রথম দিন শুধু ক্লান্তি আসবে। জ্বর হওয়ার দ্বিতীয় বা তৃতীয় দিনই প্রত্যেকেরই করোনা-পরীক্ষার প্রয়োজন নেই। এতে আরও বড় সমস্যা হবে।

তৃতীয় দিন হালকা জ্বর অনুভব হবে, সঙ্গে কাশি ও গলায় সমস্যা। পঞ্চম দিন পর্যন্ত মাথাব্যথা। পেটের সমস্যাও হতে পারে। ষষ্ঠ বা সপ্তম দিনে শরীরে ব্যথা বাড়বে এবং মাথা যন্ত্রণা কমতে থাকবে। তবে ডায়রিয়ার লক্ষণ দেখা দিতে পারে। পেটের সমস্যা থেকে যাবে। এবার খুবই গুরুত্বপূর্ণ। অষ্টম ও নবম দিনে সব লক্ষণই চলে যাবে। তবে সর্দির প্রভাব বাড়তে থাকে। এর অর্থ আপনার প্রতিরোধক্ষমতা বেড়েছে এবং আপনার করোনা-আশঙ্কার প্রয়োজন নেই।

করোনা-পরীক্ষার প্রয়োজনীয়তা নিয়ে দেবী শেঠি বলেন, এমন সময় আপনার করোনা পরীক্ষার প্রয়োজন নেই। কারণ আপনার শরীরে অ্যান্টিবডি তৈরি হয়েছে। যদি অষ্টম বা নবম দিনে আপনার শরীর আরও খারাপ হয়, করোনা হেল্পলাইনে ফোন করে অবশ্যই পরীক্ষা করিয়ে নিন।

শিক্ষিত ও সচেতন মানুষের প্রতি আহ্বান জানিয়ে ভারতীয় এই চিকিৎসক বলেন, আমার পরামর্শ হলো- জ্বর হলেই করোনার পরীক্ষা নয়। আগে অপেক্ষা করে উপসর্গ পর্যবেক্ষণ করুন। খারাপ হলে নিজেকে পরীক্ষা করিয়ে নিন।

জেনে নিন বাংলাদেশে কোন হাসপাতালে পাবেন করোনাভাইরাসের চিকিৎসা

সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালের ঠিকানা ও ফোন নম্বর

নিজেই পরীক্ষা করুন আপনি করোনায় আক্রান্ত কী না