ধর্ষণের মতো ন্যাক্কারজনক ঘটনার শাস্তি চায় যবিপ্রবি ছাত্রলীগ

0
39

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ছাত্রীকে ধর্ষণের প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (যবিপ্রবি) শাখা ছাত্রলীগ। মানববন্ধনে বক্তারা দাবি করেছেন, ধর্ষণের মতো ন্যাক্কারজনক ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে। বাংলাদেশকে নারীর জন্য নিরাপদ হিসেবে গড়ে তুলতে হবে। আমাদের এবারের সংগ্রাম নিপীড়ন মুক্ত বাংলাদেশ গঠনের সংগ্রাম।

আজ মঙ্গলবার দুপুরে যবিপ্রবির বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব একাডেমিক ভবনের সামনে যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (যবিপ্রবি) শাখা ছাত্রলীগ আয়োজিত মানববন্ধনে বক্তারা এসব কথা বলেন।

মানববন্ধনে একাত্মতা ঘোষণা করে যবিপ্রবি শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. মোঃ ইকবাল কবীর জাহিদ ঘটনার তীব্র নিন্দা জানান। তিনি বলেন, যখন বাংলাদেশের মানুষ মুজিব বর্ষ পালনের জন্য আনন্দে মেতে উঠবে। হুইহুল্লোড় করবে তখন আজকে এখানে আমাদের মাথা হেট করে দাঁড়াতে হয়েছে, ধর্ষণের শাস্তি দাবি জানাতে হচ্ছে। বাংলাদেশে ধর্ষণের যে আইন আছে, সেটাকে পরিবর্তন করতে হবে। ধর্ষণের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদ- নিশ্চিত করতে হবে।

শিক্ষক সমিতির নবনির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক ড. প্রকৌশলী মোঃ আমজাদ হোসেন বলেন, এটা মুখ বুঝে সহ্য করার মতো কোনো ঘটনা নয়। এটা বর্বরোচিত এবং ন্যাক্কারজনক ঘটনা। বাংলাদেশ যখন সমৃদ্ধির পথে এগিয়ে যাচ্ছে, তখন তাকে নিচে নামাতে এ ধরনের ঘটনা ঘটানো হয়েছে। বাংলাদেশকে সবার জন্য বাসযোগ্য করে গড়ে তুলতে হবে। নারীর জন্য নিরাপদ হিসেবে গড়ে তুলতে হবে। আমাদের এবারের সংগ্রাম নিপীড়ন মুক্ত বাংলাদেশ গঠনের সংগ্রাম।

কর্মকর্তা সমিতির সভাপতি প্রকৌশলী হেলাল উদ্দিন পাটোয়ারি বলেন, যারা ধর্ষক তারা নিকৃত মানসিকতা সম্পন্ন। তাদের কোনো জাত নেই, মানবতাবোধ নেই, বিবেক নেই। আজকে শিশু থেকে বয়স্ক সবাই এ ধরনের বিকৃত মানসিকতা ব্যক্তিদের দ্বারা নির্যাতিত হচ্ছে। বাংলাদেশ যখন এগিয়ে যাচ্ছে, তখন এসব ঘটনা ঘটিয়ে তাকে টেনে নিচে নামানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। এসব ঘটনা যেন আর না ঘটে এ জন্য দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করছি।

শারীরিক শিক্ষা ও ক্রীড়া বিজ্ঞান বিভাগ ছাত্রলীগের সভাপতি আসিফ আল মাহমুদ বলেন, জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে যখন দেশ দুর্বার গতিতে এগিয়ে চলেছে, তখন এমন ঘটনা কখনোই স্বস্তিদায়ক নয়। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রীর সাথে যদি এমন ঘটনা ঘটে, তাহলে সব বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রীদের নিরাপত্তাহীনতায় ভুগতে হয়। যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগ সকলের নিপীড়নের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ আছে, আগামীতেও থাকবে।

যবিপ্রবি শাখা ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক আফিকুর রহমান অয়নের পরিচালনায় মানববন্ধনে একাত্মতা জানিয়ে আরও বক্তব্য দেন যবিপ্রবির জীববিজ্ঞান ও প্রযুক্তি অনুষদের ডিন ড. কিশোর মজুমদার, শেখ হাসিনা ছাত্রী হলের প্রভোস্ট ড. সেলিনা আক্তার, বীরপ্রতীক তারামন বিবি হলের প্রভোস্ট ড. শিরিন নিগার, শারীরিক শিক্ষা ও ক্রীড়া বিজ্ঞান বিভাগের চেয়ারম্যান ড. মোঃ নাসিম রেজা, যৌন নিপীড়ন বিরোধী কমিটির আহ্বায়ক ড. মৌমিতা চৌধুরী, কর্মচারী সমিতির সভাপতি এস এম সাজেদুর রহমান জুয়েল, পেট্রোলিয়াম অ্যান্ড মাইনিং ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শিক্ষার্থী আশিক খন্দকার, ইংরেজি বিভাগের শিক্ষার্থী নুসরাত ফেরদৌস লিয়া, যবিপ্রবি সাংবাদিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মোসাব্বির হোসাইন প্রমুখ।