চীন থেকে শিক্ষার্থীদের ফেরাতে বিশেষ বিমান প্রস্তুত

0
36

পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন বলেছেন, করোনা ভাইরাসের কারণে চীনের উহান প্রদেশে আটকে পড়া বাংলাদেশি শিক্ষার্থীদের নিরাপদে ফেরানোর বিষয়ে দেশটির সাথে সরকারের আলাপ হয়েছে। তাদের ফেরানোর জন্য বিশেষ বিমান প্রস্তুত রয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

আজ মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর গুলশানের লেকশোর হোটেলে ‘ইমপ্লিমেন্টেশন অব দ্য থার্ড পেরিওডিক রিভিউ অব বাংলাদেশ’ শীর্ষক সেমিনার শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কথা বলেন। অনুষ্ঠানে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক ও পররাষ্ট্রসচিব মাসুদ বিন মোমেন উপস্থিত ছিলেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘প্রয়োজনীয় প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে তাদের ফেরত আনতে সরকার প্রস্তুত রয়েছে। চীন সরকারের সঙ্গে আমরা কথা বলেছি, তারা ১৪ দিন তাদের পর্যবেক্ষণ করবে। এর মধ্যে ওই প্রদেশে কোনো বিদেশিকে প্রবেশ ও বেরোতে দেবে না। দুই সপ্তাহ পর্যবেক্ষণ শেষে তারা সিদ্ধান্ত জানাবে।’

তিনি বলেন, ‘চীনে বাংলাদেশিদের সঙ্গে সার্বক্ষণিক যোগাযোগ রাখছি। একটি ওয়েব পেজও খুলেছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। চীন ও দক্ষিণ কোরিয়া থেকে কেউ এলে পর্যবেক্ষণে রাখব। বিমানবন্দরে তাদের ঠিকানা নেব। তারা কোথায় অবস্থান করবে, সে তথ্যও নেওয়া হবে।’

এসময় চীন ভ্রমণে বাংলাদেশিদের সতর্কতা অবলম্বনের পরামর্শ দিয়ে তিনি বলেন, ‘এটা অজানা এক ভাইরাস। এখনো এ রোগের কোনো ভ্যাকসিন আবিষ্কার হয়নি। তাই চীন ভ্রমণে সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে।’

করোনা ভাইরাসের বিষয়ে বাংলাদেশ সতর্ক রয়েছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, এই ভাইরাস রোধে বাংলাদেশ সতর্ক অবস্থায় রয়েছে। বিমানবন্দরসহ প্রয়োজনীয় জায়গায় নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

বাংলাদেশের অনেক উন্নয়ন প্রকল্পে চীনা কর্মীরা জড়িত রয়েছে, এজন্য কোনো সমস্যা হবে কি না জানতে চাইলে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘এতে কোনও অসুবিধা নাই। ভাইরাস না থাকলে অসুবিধা কোথায়?’