breaking news

বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে পড়তে থাকা করোনাভাইরাস চিকিৎসায় সাফল্য পেয়েছেন থাইল্যান্ডের চিকিৎসকরা। ফ্লু এবং এইচআইভি ভাইরাসের ওষুধের মিশ্রণ করোনা ব্যবহার করে প্রাথমিক সাফল্য পেয়েছে তারা। ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, রবিবার (২ ফেব্রুয়ারি) থাইল্যান্ডের রাজধানী ব্যাংককের রাজাভিথি হাসপাতালের চিকিৎসকরা এই দাবি করেছেন।

ডা. ক্রিয়েংসাক আত্তিপর্নানিচ সাংবাদিকদের বলেন, আমি খুবই গুরুতর অবস্থার এক রোগীর চিকিৎসা করেছি এবং ফলাফল খুবই সন্তোষজনক। মাত্র ৪৮ ঘণ্টার মধ্যেই রোগীর অবস্থার উন্নতি হয়েছে। পুরোপুরি বিধ্বস্ত অবস্থায় থাকা রোগী উঠে বসেছে মাত্র ১২ ঘণ্টা পরেই। করোনাভাইরাস আক্রান্ত হওয়ার ল্যাব রেজাল্টও ৪৮ ঘণ্টার মধ্যেই পজিটিভ থেকে নেগেটিভ হয়ে গেছে।

এই চিকিৎসক জানান, তারা ওই রোগীর চিকিৎসায় অ্যান্টি-ফ্লু ওষুধ ওসেলটামিভির এবং এইচআইভির চিকিৎসায় ব্যবহৃত লোপিনাভির ও রিটোনাভিরের মিশ্রণ ব্যবহার করেছেন। এই পদ্ধতি আরও ব্যবহার করা হবে কি না তা জানতে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের গবেষেণা প্রতিবেদনের জন্য অপেক্ষা করা হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

থাই মেডিক্যাল সার্ভিস বিভাগের মহাপরিচালক সোমস্যাক আকসলিম বলেন, ৭০ বছর বয়সী নারীর চিকিৎসা সফলতা নিয়ে আলোচনার জন্য সোমবার বৈঠকে বসবে মন্ত্রণালয়। তবে সব রোগীর ওপর এই চিকিৎসা প্রয়োগ করা হবে কিনা তা এখনও নির্ধারণের সময় হয়নি। প্রাথমিকভাবে মারাত্মক আক্রান্ত রোগীদের ওপর এটি প্রয়োগ করা হবে বলে জানান তিনি।