টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ স্থগিত। আইসিসি এই ঘোষণা করতেই আইপিএল হওয়ার সম্ভাবনা উজ্জ্বল হয়েছে। আইপিএল আয়োজনের তৎপরতা বেড়ে গিয়েছে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) অন্দরমহলে।

আইসিসির বৈঠকের পরের দিনই আইপিএল এর গভর্নিং কাউন্সিলের চেয়ারম্যান ব্রিজেশ প্যাটেল জানিয়ে দিলেন, মেগা টুর্নামেন্টে কোনো কাটছাঁট করা হবে না। পূর্ণাঙ্গ আইপিএল-ই হবে এবং টুর্নামেন্ট আয়োজন করার দৌঁড়ে এগিয়ে সংযুক্ত আরব আমিরাতই।

টুর্নামেন্টের সময়সূচি অবশ্য জানাননি আইপিএল প্রধান। তবে কদিন আগে ইএসপিএনক্রিকইনফো দাবি করেছিল, ২৬ সেপ্টেম্বর থেকে ৭ নভেম্বর পর্যন্ত টুর্নামেন্টের সম্ভাব্য সময় ধরে রাখা হয়েছে।

আগামী অক্টোবর-নভেম্বরের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ স্থগিতের ঘোষণা আসার পরদিনই এলো এই খবর। বিশ্বকাপ স্থগিত হওয়া একরকম নিশ্চিতই ছিল। ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড বা বিসিসিআই অপেক্ষা করছিল কেবল আইসিসির আনুষ্ঠানিক ঘোষণার জন্য।

প্যাটেল জানান, আইপিএল আরব আমিরাতে আয়োজনের অনুমতি চেয়ে তারা এর মধ্যেই ভারত সরকারের কাছে আবেদন করেছেন। তিনি আশা করছেন, অনুমতি পেয়ে যাবেন।

আরব আমিরাতের তিন মূল ভেন্যু, দুবাই, আবু ধাবি ও শারজাহতে হবে খেলা। দর্শকশূন্য স্টেডিয়ামে খেলা হবে কি-না, তা সেই দেশের সরকারের ওপর নির্ভর করছে বলে জানান আইপিএল প্রধান।