স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের কালো তালিকায় ১৪টি প্রতিষ্ঠান

0
36
Health Ministry

দেশের চৌদ্দটি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানকে কালোতালিকাভুক্ত করলো স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) নির্দেশনার প্রায় সাড়ে ৬ মাস পর দুর্নীতি, প্রতারণা ও চক্রান্তের অভিযোগে ওই প্রতিষ্ঠানগুলোর বিরুদ্ধে এই ব্যবস্থা গ্রহণ করলো অধিদপ্তর।

এ বিষয়ে ২৪ জুন, বুধবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক (প্রশাসন) এই নির্দেশ দেন। তথ্য বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, এই প্রতিষ্ঠানগুলো স্বাস্থ্য সরঞ্জাম কেনাকাটার ১৩১ কোটি টাকা আত্মসাৎ করেছে।

এর আগে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়ন্ত্রণে থাকা মেডিকেল কলেজ, হাসপাতাল ও প্রতিষ্ঠানের এমএসআর, ভারী মেশিন ও সামগ্রী কেনা কাটায় অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ ওঠে। তার ভিত্তিতে তদন্ত করে ২০১৯ সালের ১২ই ডিসেম্বর চৌদ্দটি ঠিকাদার প্রতিষ্ঠানকে কালো তালিকাভুক্ত করতে মন্ত্রীপরিষদ বিভাগের সচিবের কাছে চিঠি দেয় দুদক।

ওই চিঠি দেয়ার ঠিক ১৭৮ দিন পর চলতি মাসের ৬ তারিখ স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের ক্রয় ও সংগ্রহ অধিশাখা, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক, কেন্দ্রীয় ঔষাধাগারের পরিচালকে দুদকের সুপারিশ অনুযায়ী ব্যবস্থা নিতে চিঠি দেন।

ওই নথিতে দেখা গেছে, ১৪টি ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে দুর্নীতি করে ১৩১ কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে ৯টি মামলা রয়েছে। ২০১৮ ও ১৯ সালে মামলাগুলো করে দুদক।