সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সাড়ে ৩২ হাজার শিক্ষক নিয়োগে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ

0
29

সারাদেশের সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সহকারী শিক্ষক নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর। সোমবার রাত ১২টার পরে প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের ওয়েবসাইটে এবং মঙ্গবার চারটি জাতীয় দৈনিকে এ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হচ্ছে। এ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এবার সারাদেশে সাড়ে ৩২ হাজার সহকারি শিক্ষক নিয়োগ করা হবে।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের ভারপ্রাপ্ত মহাপরিচালক সোহেল আহমেদ এ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের তথ্য নিশ্চিত করেছেন। বিজ্ঞপ্তির বিস্তারিত পাওয়া যাবে সংশ্নিষ্ট ওয়েবসাইটে (http://dpe.teletalk.com.bd)।

সহকারী শিক্ষক পদে নিয়োগে আগ্রহী প্রার্থীদের অনলাইনে আবেদন করতে হবে। অনলাইনে আবেদন গ্রহণ শুরু হবে ২৫ অক্টোবর সকাল সাড়ে ১০টা থেকে। শেষ হবে ২৪ নভেম্বর রাত ১১টা ৫৯ মিনিটে। আবেদন ফি ১১০টাকা। সহকারী শিক্ষকদের বেতন হবে জাতীয় বেতন স্কেল, ২০১৫ এর গ্রেড ১৩ অনুযায়ী ১১০০০-২৬৫৯০ টাকা।

প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে রাজস্বখাতভুক্ত ‘সহকারী শিক্ষক’ এর শূন্যপদ এবং জাতীয়করণ করা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পিডিইপি-৪ এর আওতায় প্রাক-প্রাথমিক শ্রেণির জন্য রাজস্বখাতে সৃষ্ট ‘সহকারী শিক্ষক’ পদে জাতীয় বেতন স্কেল, ২০১৫ এর ১৩তম গ্রেডে অস্থায়ীভাবে নিয়োগ করা হবে। তবে তিন পার্বত্য জেলা রাঙ্গামাটি, খাগড়াছড়ি ও বান্দরবানের প্রার্থীরা এতে আবেদন করতে পারবেন না।

বিজ্ঞপ্তি অনুসারে, প্রার্থীদের বয়স ২০ অক্টোবর পর্যন্ত সর্বনিম্ন ২১ বছর এবং গত ২৫ মার্চ পযন্ত সর্বোচ্চ ৩০ বছর। মুক্তিযোদ্ধার সন্তান ও শারীরিক প্রতিবন্ধীদের ক্ষেত্রে এ বয়সসীমা হবে ২৫ মার্চ পর্যন্ত ৩২ বছর।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর থেকে জানা গেছে, সারাদেশে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে দুই বছর মেয়াদী প্রাক-প্রাথমিক শিক্ষা চালু হওয়ায় নতুন করে এই শিক্ষক নিয়োগ করা হচ্ছে। প্রাক-প্রাথমিক স্তরের জন্য ২৫ হাজার ৬৩০ জন শিক্ষক নতুন পদে এবং বিদ্যালয়ে শুণ্য থাকা ৬ হাজার ৯৪৭ শূন্যপদে সহকারি শিক্ষক নিয়োগ করা হবে।

শিক্ষক নিয়োগে আগের নির্ধারিত ৬০ শতাংশ নারী, ২০ শতাংশ পুরুষ এবং ২০ শতাংশ পোষ্য কোটা বহাল থাকছে। এগুলোর মধ্যে আবার প্রতিটিতে ২০ শতাংশ করে বিজ্ঞান বিষয়ের শিক্ষক নিয়োগের কোটা অনুসরণ করা হবে।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের নিয়োগ শাখার সহকারী পরিচালক আতিক বিন সাত্তার বলেন, নতুন করে ৩২ হাজার ৫৭৭ জন শিক্ষক নিয়োগ দেয়া হবে। তার মধ্যে প্রাইমারি এডুকেশন বেঢেলপমেন্ট প্রজেক্টের (পিইডিপি-৪) আওতায় প্রাক-প্রাথমিকে ২৫ হাজার ৬৩০ জন এবং বিভিন্ন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষকের শুন্য পদে পদে রাজস্ব খাতে ৬ হাজার ৯৪৭ জন নিয়োগ দিতে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে।

জানা গেছে, এবার প্রার্থীর এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষার রোল ও রেজিস্ট্রেশন নম্বর দিয়ে আবেদন প্রক্রিয়া অনলাইনে সম্পন্ন করতে হবে। আবেদনকারী নারী-পুরুষ উভয়ের জন্য শিক্ষাগত যোগ্যতা হিসেবে স্নাতক (সম্মান), স্নাতক (পাস) বা সমমান ডিগ্রি নির্ধারণ করা হয়েছে। বুয়েট ও টেলিটক মোবাইল কোম্পানির সহায়তায় আবেদন গ্রহণ, কেন্দ্রে প্রশ্নপত্র পাঠানো, খাতা মূল্যায়ন ও ফল প্রকাশ করা হবে।