চিকিৎসার খরচ জোগাতে এন্ড্রু কিশোরের ফ্ল্যাট বিক্রি

0
137

চিকিৎসার খরচ জোগাতে নিজের ফ্ল্যাটও বিক্রি করলেন প্লেব্যাক সম্রাট খ্যাত এন্ড্রু কিশোর। রাজশাহীতে তার একটি ফ্ল্যাট ছিল, মাঝে মধ্যে সেই বাড়ি গিয়ে থাকতেন এন্ড্রু কিশোর। অবশেষে ক্যান্সারের হাত থেকে মুক্তি পেতে ফ্ল্যাটটিও বিক্রি করেছেন তিনি। বিষয়টি এন্ড্রু কিশোরের এক ঘনিষ্ঠজন নিশ্চিত করেছেন।

এন্ড্রু কিশোর বর্তমানে সিঙ্গাপুর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। অসুস্থ অবস্থায় গত ৯ সেপ্টেম্বর উন্নত চিকিৎসার জন্য সিঙ্গাপুরের উদ্দেশ্যে দেশ ছেড়েছিলেন। বিভিন্ন পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর গত ১৮ সেপ্টেম্বর তার শরীরে ক্যান্সার ধরা পড়ে।

শুরুতে নিজের জমানো টাকা দিয়েই চিকিৎসা শুরু করেন এন্ড্রু কিশোর। কিন্তু সে টাকায় চিকিৎসার সম্পূর্ণ খরচ মেটানো সম্ভব না বলে রাজশাহীর ফ্ল্যাটটি বিক্রি করে দেন। তুলনামূলক রাজশাহী শহরের ফ্ল্যাটের দাম কম হওয়ায় ৩০ লাখ টাকার মতো দাম পেয়েছেন। এখন সম্বল বলতে মিরপুরে একটি ফ্ল্যাট রয়েছে গুণী এ শিল্পীর।

এ পর্যন্ত এন্ড্রু কিশোরকে তিনটি সাইকেলে ১২টি কেমোথেরাপি সম্পন্ন হয়েছে। আরো তিনটি সাইকেলে ১২টি কেমোথেরাপি দিতে হবে বলে জানান চিকিৎসকরা। এখন চলছে সেই কেমোথেরাপি। প্রত্যেকটি কেমোর জন্য লাগছে ৯ লাখ টাকা। সেখানকার চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, এ চিকিৎসা আরো প্রায় আড়াই থেকে তিন মাস চলবে।

হাসপাতাল থেকে চিকিৎসার বাজেট দেয়া হয়েছে প্রায় আড়াই কোটি টাকা। এরই মধ্যে শিল্পীর পরিবার খরচ করেছে এক কোটি টাকারও বেশি। আরো টাকা প্রয়োজন। তার চিকিৎসায় অনেকেই পাশে দাঁড়িছেন। অবশেষে সংগ্রহ হয়েছে ৫০ লাখ টাকা। এর আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এই শিল্পীর চিকিৎসা সহায়তার জন্য ১০ লাখ টাকা দেন।

এর বাইরে এন্ড্রু কিশোরের চিকিৎসার জন্য তহবিল গঠনের আবেদন করেছেন তার স্ত্রী লিপিকা এন্ড্রু। ‘গো ফান্ড মি’ নামের ওয়েবসাইটে এটি করা হয়েছে। এই ফান্ডেও সহযোগিতা করছেন অনেকেই।