বাবরি মসজিদ মামলায় আদভানি সহ সবাই খালাস পেয়েছেন

0
6

১৯৯২ সালের ৬ ডিসেম্বর ভারতের বাবরি মসজিদ ভাঙার ২৮ বছরের পুরোনো মামলায় দেশটির ক্ষমতাসীন ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) ৩২ সদস্যের সবাইকে বুধবার খালাস দিয়েছে বিশেষ আদালত।

খালাস পাওয়াদের মধ্যে আছেন শ্রী এল কে আদভানি, শ্রী কল্যাণ সিং, ডাঃ মুরালি মনোহর যোশী ও ওমা ভারতী। তাদের বিরুদ্ধে অযোধ্যায় নির্মিত ১৬ শতকের বাবরি মসজিদ ভেঙে দিতে ১৯৯২ সালে হিন্দু জনতাকে উস্কে দেয়ার অভিযোগ ছিল।

রায় ঘোষণার পর এল কে আদভানি (৯২ ) বছেন যে, এটি আমাদের সবার জন্য একটি আনন্দের মুহূর্ত। আদালতের এই সিদ্ধান্তটি আমার এবং দলের প্রতিশ্রুতি ও রামজন্মভূমি আন্দোলনের প্রতি উত্সর্গকে ন্যায্য করেছে।

বিশেষ আদালতের বিচারক ২০০০ পৃষ্ঠার রায়ের গুরুত্বপূর্ণ অংশ পড়ার সময় বলেন, ‘সব আসামি খালাস পেয়েছেন। প্রমাণ নেই যে অভিযুক্তরা মসজিদটি ধ্বংস করে দিতে ষড়যন্ত্র করেছিলেন।’

বাবরি মসজিদ ভেঙে দেয়ার ঘটনায় ভারতজুড়ে যে সহিংসতা হয়েছিল, তাতে কমপক্ষে ২০০০ মানুষের প্রাণ গিয়েছিল। গত বছর ভারতের উচ্চ আদালত মসজিদের বিতর্কিত ওই জায়গা সংখ্যাগরিষ্ঠ হিন্দুদের কাছে হস্তান্তর করে।

প্রসঙ্গত, বাবরি ধ্বংস মামলায় দুটি এফআইআর দায়ের করা হয়েছিল, এর মধ্যে একটি অজ্ঞাতপরিচয় লোকদের বিরুদ্ধে ছিল। দ্বিতীয় এফআইআর-তে ৪ জনের নাম অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছিল, এর মধ্যে ৩ জন মারা গেছে। পুরো মামলায় ৪৮ আসামি করা হয়েছিল, যার মধ্যে ১৬ জন মারা গেছেন।