মহানবী (স.) কে অবমাননার অভিযোগে বিশ্বজুড়ে ফরাসি পণ্য বয়কটের ডাক দিয়েছে মুসলিমরা। এ বিষয়ে ব্যাপক প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে সামাজিক মাধ্যমে। এরই মধ্যে কুয়েতসহ কয়েকটি আরব দেশ ফরাসি পণ্য বয়কটের ডাক দিয়েছে। তারই প্রেক্ষিতে ফরাসী পণ্য বয়কট না করার অনুরোধ করেছে ফ্রান্স।

মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোকে ফরাসি পণ্য বয়কট না করতে অনুরোধ জানিয়ে একটি বিবৃতি প্রকাশ করেছে। তবে তারা মহানবীর ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শনের ক্ষেত্রে বাকস্বাধীনতার নীতিতে অটল রয়েছে। এ বিষয়ে মাথা নত করা হবে না বলেও জানিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাকরোঁ।

বিবৃতিতে বলা হয়, মহানবী হজরত মোহাম্মদ (সা.)- এর ব্যঙ্গাত্মক কার্টুন প্রকাশের পর সম্প্রতি মধ্যপ্রাচ্যের বেশ কয়েকটি দেশে ফ্রান্সের পণ্য, বিশেষ করে খাদ্যপণ্য বয়কটের আহ্বান জানিয়েছে। এ ছাড়া পাশাপাশি ফ্রান্সের বিরুদ্ধে বিক্ষোভের ডাক দিয়েছে বেশ কয়েকটি মুসলিম দেশ। বয়কটের এসব আহ্বান ভিত্তিহীন এবং অবিলম্বে এগুলো বন্ধ হওয়া উচিত। সেই সঙ্গে সব ধরনের আক্রমণাত্মক মনোভাব, যা একটি উগ্র সংখ্যালঘু সম্প্রদায় উসকে দিচ্ছে, সেগুলো বন্ধ করতে হবে।

এক টুইটবার্তায় এমানুয়েল ম্যাক্রোঁ বলেন, ‌‘আমরা কখনোই ইসলামি মৌলবাদীদের কাছে নত স্বীকার করব না। এ ছাড়া আমরা বিদ্বেষপূর্ণ বক্তব্য গ্রহণ ও যুক্তিযুক্ত মতামতকে প্রতিহত করি না।’

সম্প্রতি ফ্রান্সের একটি বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে মহানবী হজরত মোহাম্মদ (সা.)-এর কার্টুন প্রদর্শনের কারণে দেশটির এক শিক্ষককে চেচেন বংশোদ্ভূত এক কিশোর গলা গেটে হত্যা করে। ওই ঘটনাকে কেন্দ্র করে দেশটিতে ব্যাপক উত্তেজনা তৈরি হয়েছে।