করোনাভাইরাসের কারণে কোয়ারেন্টিন ও প্রয়োজনীয় চিকিৎসাকাজে টঙ্গীর বিশ্ব ইজতেমার মাঠ ব্যবহার করা হবে। এ জন্য প্রয়োজনীয় প্রস্তুতি নিতে তুরাগতীরের ওই মাঠ সেনাবাহিনীর কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। সেনাবাহিনী ওই মাঠের জায়গাটি নিয়ন্ত্রণে নিচ্ছে।

আজ বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে করোনাভাইরাস প্রতিরোধের প্রস্তুতি বিষয় জানাতে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক।

মন্ত্রী বলেন, আক্রান্ত এলাকাগুলো লকডাউন করার বিকল্প দেখছি না। মাদারিপুর, শরীয়তপুরের কয়েকট জায়গা চিহ্নিত করা হয়েছে। এখানকার অবস্থা আরো অবনতি হলে সম্পূর্ণ লকডাউন করা হবে। জর সর্দি কাশি নিয়ে কেউ চড়বেন না। যাতায়াত সীমিত করা হয়েছে। ধর্মীয় ও সামাজিক অনুষ্ঠান সীমিত করার অনুরোধ করেন তিনি।

তিনি বলেন, সারা দেশে বিদেশ ফেরত ৫ হাজারের বেশি মানুষ কোয়ারেন্টিনে আছেন। আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ১৭ জন চিকিৎসাধীন।

করোনাভাইরাসে মৃত ব্যক্তির বিষয়ে তিনি বলেন, মেয়ে ইতালি থেকে দেশে এসে বাবাকে আক্রান্ত করে আবার ইতালি চলে গেছেন। কাজেই কেউ যাতে এখন বিদেশ থেকে না আসেন সবাইকে অনুরোধ জানান মন্ত্রী।