কে এই সোলাইমানি?

0
43

ইরাকের রাজধানী বাগদাদের কাছে শুক্রবার ভোরে যুক্তরাষ্ট্রের বিমান হামলায় ইরানের কুদস ফোর্সের প্রধান জেনারেল কাসেম সোলাইমানি নিহত হয়েছেন। তার মৃত্যুর বিষয়ে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিরক্ষা বিভাগের সদরদপ্তর পেন্টাগন জানিয়েছে, দেশটির প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নির্দেশে এই হামলা চালানো হয়েছে।

সোলাইমানির মৃত্যু উপলক্ষে দেয়া শোকবার্তায় ইরানের সর্বোচ্চ ধর্মীয় নেতা আয়াতুল্লাহ খামেনি বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রের জন্য কঠোর প্রতিশোধ অপেক্ষা করছে।

এদিকে সোলাইমানিকে হত্যার প্রতিবাদে রাস্তায় নেমেছেন লাখো ইরানি। একটি প্রশ্ন উঠতেই পারে, কে এই সোলায়মানি যাকে হত্যার নির্দেশ দিয়েছেন ট্রাম্প।

ইরানের ইসলামিক রেভল্যুশন গার্ডস কর্পসের কুদস ফোর্সের কমান্ডার লে. জেনারেল সোলায়মানি ১৯৫৭ সালে ইরানের দক্ষিণের কেরমান শহরে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ১৯৭৯ সালের ১১ ফেব্রুয়ারি আইআরজিসিতে যোগ দেন। ১৯৮০ থেকে ১৯৮৮ সাল পর্যন্ত ইরান-ইরাক যুদ্ধে তিনি কেরমানের ৪১ সারুল্লাহ ডিভিশনের নেতৃত্ব দেন।

এরপর তিনি ইরানের পূর্ব সীমান্তে মাদক চোরাচালান ও সন্ত্রাস বিরোধী অভিযানে কমান্ডারের দায়িত্ব পান। ১৯৯৭ সালে তাকে কুদস ফোর্সের কমান্ডার করেন খামেনি।

সোলায়মানি ২০১১ সালের ২৪ জানুয়ারি মেজর জেনারেল পদে উন্নীত হন। এসময় তিনি ইরাক ও সিরিয়ায় দায়েশের সন্ত্রাসীদের দমনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন।

তিনি প্রায় ছয় বছর ধরে চেষ্টা চালানোর পর ২০১৭ সালের ২১ নভেম্বর ইরানের সর্বোচ্চ নেতাকে লেখা এক চিঠিতে দায়েশের খেলাফতের পতন হওয়ার কথা জানান।

সোলায়মানি সবসময় শহিদ হওয়ার আকাঙ্ক্ষা পোষণ করতেন। এমনকি তাকে জীবন্ত শহিদ বলে অভিহিত করতেন ইরানের সর্বোচ্চ ধর্মীয় নেতা আয়াতুল্লাহ খামেনি।